Text size A A A
Color C C C C
পাতা

কী সেবা কীভাবে পাবেন

ফসল উৎপাদনের আধুনিক প্রযুক্তি সহায়তা:

কৃষি বিষয়ক নতুন উদ্ভাবিত প্রযুক্তিসমূহ কৃষকদের দোরগোড়ায় নিয়ে যাওয়া।

নতুন উদ্ভাবিত প্রযুক্তিসমুহ কৃষকের নিকট পরিচিতির জন্য প্রদর্শনী স্হাপন, মাঠ দিবস বাস্তবায়ন,  প্রযুক্তিমেলা, উদ্বুদ্ধকরণ ভ্রমন ইত্যাদি।

কৃষি তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি সহায়তা:

কৃষি বিষয়ক তথ্য,ফসল উৎপাদনের আধুনিক প্রযুক্তি এবং সমস্যা সমাধানে প্রয়োজনীয় পরামর্শ প্রদান।

সার ডিলার নিয়োগ ও বালাইনাশকের লাইসেন্স প্রদান:

প্রতিটি ইউনিয়ন হতে একজন BCIC সারের ডিলার ও প্রতি ওয়ার্ডে একজন খুচরা সার বিক্রেতা নিয়োগের ব্যবস্থা করা হয়েছে।

            বালাইনাশকের খুচরা ও পাইকারী বিক্রেতার লাইসেন্স প্রদান।

 সার, বীজ ও বালাইনাশক মনিটরিং:

সরকার নির্ধারিত মূল্যে সার, বীজও বালাইনাশক কৃষকদের সহজলভ্য করার জন্য সার, বীজ ও বালাইনাশক ডিলারের দোকনি/গুদাম মনিটরিং, যথাসময়ে সার উত্তোলন ও বিতরণ, ভেজালমুক্ত কৃষি উপকরণ চাষীদের দোড়গোড়ায় পৌছানোর জন্য যথাযথ পদক্ষেপ গ্রহন।

জমির উর্বরতা ও ফসল ভিত্তিক প্রয়োজনীয়সার সরবরাহ নিশ্চিত করা।

সার ও বালাইনাশকের মান নিয়ন্ত্রণ:

সন্দেহজনক ভেজাল সার ও বালাইনাশকের নমুনা সংগ্রহ করে পরীক্ষাগারে প্রেরণ পূর্বক প্রয়োজনীয় ও আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহন।

মাটির স্বাস্হ্য সংরক্ষণও উর্বরতা বৃদ্ধি:

মাটির স্বাস্হ্য সেবায় সুষম সার প্রয়োগ, জৈব সার প্রয়োগ ও শস্য পর্যায় অনুসরণে কৃষকদেরকে পরামর্শ ও সহায়তা করা।

জৈব কম্পোষ্ট, ভার্মি কম্পোষ্ট, খামারজাত সার প্রস্তুত ও ব্যবহারে কৃষকদেরকে প্রয়োজনীয় কারিগরী সহায়তা প্রদান।

মাটি  পরীক্ষা পূর্বক ফসল ভিত্তিক সারের মাত্রা নির্ধারণ করে সার প্রয়োগের সুপারিশ প্রদান।

সমন্বিত বালাই ব্যবস্হাপনা:

আইপিএম ও আইসিএম ক্লাবের মাধ্যমে পরিবেশসম্মত উপায়ে নিরাপদ ফসল উৎপাদনে রোগ ও পোকামাকড় দমনে কার্যকরী প্রশিক্ষণ ও পরামর্শ প্রদান।

সেচ ব্যবস্হাপনা:

ধান ফসলে সেচ প্রদানে AWD(Alternate Wet & Dry) প্র্রযুক্তি ব্যবহারে কৃষকদেরকে পরামর্শ প্রদান।

সেচ ব্যবস্থাপনা প্রযুক্তির উপর প্রশিক্ষণ ও পরামর্শ প্রদান।

সেচ কাজে ভূপরিস্থ পানি ব্যবহারে কৃষকদের উদ্বুদ্ধ করা।

সমন্বিত সম্প্রসারণ সেবা প্রদান:

বিভিন্ন সরকারী, বেসরকারী ও গবেষণা সংস্হার সাথে সমন্বয় সাধনের মাধ্যমে কৃষি সম্প্রসারণ সেবা জোরদারকরণ।

প্রশিক্ষণ প্রদান:

নতুন উদ্ভাবিত ফসলের জাত, চাষাবাদ পদ্ধতি সম্পর্কে কৃষি কর্মী, ও কৃষকদেরকে হাতে কলমে প্রশিক্ষণ প্রদান।

মানসম্মত বীজ উৎপাদনে সহায়তা করা:

প্রগতিশীল আগ্রহী চাষীদের মাধ্যমে উন্নতমানের বীজ উৎপাদনে প্রয়োজনীয় পরামর্শ প্রদান, উৎপাদিত উন্নত বীজ সঠিকভাবে সংরক্ষণ করে প্রতিবেশী চাষীদের মাঝে বিতরণের মাধ্যমে ব্যাপক বিস্তারের ব্যবস্হা করা।

কৃষি ঋণ প্রাপ্তিতে সহায়তা প্রদান:

স্বল্প সুদে ও সহজ কিস্তিতে সরকারী ও বেসরকারী প্রতিষ্ঠান হতে কৃষিঋণ প্রাপ্তিতে সহায়তা প্রদান।

প্রাপ্ত কৃষিঋণ যথাযথভাবে ফসল উৎপাদনের কাজে ব্যবহার করতে প্রয়োজনীয় সহায়তা প্রদান।

কৃষি ঋণ বিষয়ে বিস্তারিত সুযোগ সুবিধা সম্পর্কে কৃষকদের অবহিত করা।

কৃষি পুনবার্সনে সহায়তা:

বন্যা, খরা ও অন্যান্য প্রাকৃতিক দুর্যোগে ফসলের ক্ষয়ক্ষতি পুষিয়ে নেয়ার জন্য কৃষি উপকরণ সহায়তা প্রদান।

কৃষিতে ভর্তুকি:

সার, বীজ, ডিজেল ও আধুনিক কৃষি যন্ত্রপাতি সরকার প্রদত্ত ভর্তুকি  প্রাপ্তি নিশ্চিত করা।

কৃষিতে প্রণোদনা:

খাদ্য উৎপাদন বৃদ্ধির লক্ষ্যে ফসল আবাদ বৃদ্ধিতে কৃষকদের উৎসাহ প্রদানের জন্য সরকার প্রদত্ত প্রণোদনা (যেমন- বিনামুল্যে সার, বীজ, চারা, সেচ ও অন্যান্য খরচ বাবদ নগদ অর্থ) সমূহ কৃষকদের মাঝে বিতরণ।

প্রাকৃতিক দুর্যোগ মোকাবেলায় পরামর্শ প্রদান:

বন্যা, খরা ও অন্যান্য প্রাকৃতিক দুর্যোগ মোকাবেলায় কৃষকদেরকে প্রয়োজনীয় কারিগরী সহায়তা প্রদান

বসতবাড়ীর আঙ্গিনায় সবজি চাষ:

কৃষক/কৃষাণীদের বসতবাড়ীর আঙ্গিনায় সবজি চাষ মাধ্যমে পারিবারিক খাদ্য চাহিদা পুরণে প্রয়োজনীয়  পরামর্শ প্রদান।

ফলবাগান সৃজন ও  ব্যবস্হাপনা:

উন্নত জাতের দেশী ও বিদেশী ফলের পারিবারিক ফল বাগান সৃজনে কৃষকদেরকে উদ্বুদ্ধকরণ ও প্রয়োজনীয়  পরামর্শপ্রদান।

ফল বাগান ব্যবস্থাপনায় কৃষকদেরকে প্রয়োজনীয় পরামর্শ প্রদান।

আধুনিক কৃষি যন্ত্রপাতি ব্যবহার:

আধুনিক কৃষি যন্ত্রপাতি ব্যবহারের মাধ্যমে কম খরচে অধিক উৎপাদন করে কৃষকদের জীবনযাত্রার মান উন্নয়নে সহায়তা করা।